1. aponi955@gmail.com : Apon Islam : Apon Islam
  2. mdarifpress@gmail.com : Nure Alam Siddky Arif : Nure Alam Siddky Arif
  3. hasanchy52@gmail.com : hasanchy :
  4. sandhanitv@gmail.com : Kamrul Hasan : Kamrul Hasan
  5. glorius01716@gmail.com : Md Mizanur Rahman : Md Mizanur Rahman
  6. mrshasanchy@gmail.com : Riha Chy : Riha Chy
শনিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৩:৫৬ পূর্বাহ্ন

বাংলাকে বিশ্বমঞ্চে তুলে ধরার প্রত্যয়ে শুরু হচ্ছে নবম ‘ঢাকা লিট ফেস্ট’

  • প্রকাশ: মঙ্গলবার, ৫ নভেম্বর, ২০১৯
  • ১৪০ বার দেখা হয়েছে

বাংলা একাডেমি চত্বরে ‘ঢাকা লিটারারি ফেস্টিভ্যাল’-এর ব্যানারে নবমবারের মতো অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে দেশি-বিদেশি সাহিত্য অঙ্গনের রথী-মহারথীদের মিলন মেলা। বাংলাকে বিশ্বের মঞ্চে তুলে ধরার প্রত্যয় নিয়ে শুরু হতে যাচ্ছে এ উৎসব। মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবের জহুর হোসেন চৌধুরী হলে এ কথা জানান ঢাকা লিট ফেস্টের আয়োজকরা।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা লিট ফেস্টের পরিচালক সাদাফ সায্, টাইটেল স্পন্সর সম্পাদক জুলফিকার রাসেল, ঢাকা ট্রিবিউনের সম্পাদক জাফর সোবহান, প্লাটিনাম স্পন্সর সিটি ব্যাংকের এমডি মাসরুর আরেফিন প্রমুখ। সংবাদ সম্মেলনের শেষ পর্যায়ে অংশ নেন ঢাকা লিট ফেস্টের পরিচালক কাজী আনিস আহমেদ এবং আহসান আকবর।

সংবাদ সম্মেলনে সাদাফ সায্‌ বলেন, ‘আগামী ৭-৯ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া এ সাহিত্য উৎসবে পাঁচটি মহাদেশের ১৮টি দেশ থেকে শতাধিক বিদেশি এবং দুই শতাধিক বাংলাদেশি সাহিত্যিক, লেখক, গবেষক, সাংবাদিক, রাজনীতিক অংশ নিচ্ছেন। দেশি-বিদেশি অতিথিদের সঙ্গে সরাসরি সাহিত্যসহ সমাজের বিভিন্ন প্রসঙ্গ নিয়ে আলোচনা-পর্যালোচনার সুযোগ থাকছে জনসাধারণের জন্য।’

সাদাফ আরও বলেন, ‘শুধুই যে লিট ফেস্টের ৯০টির বেশি সেশন অনুষ্ঠিত হবে তা নয়, এখানে রয়েছে বইয়ের সমারোহ, দেশীয় ঐতিহ্যকে তুলে ধরার উন্মুক্ত মঞ্চ। বই প্রকাশ এবং বইয়ের মোড়ক উন্মোচনও অনুষ্ঠিত হবে এই আয়োজনে। লোকশিল্পীদের উপস্থিতি থাকবে, থাকছেন শিল্পী চন্দনা, মাইজভাণ্ডারি শিল্পীগোষ্ঠী। আমাদের একমাত্র উদ্দেশ্য বাংলাদেশের অসাম্প্রদায়িকতা, গণতন্ত্র ও সাহিত্য বিশ্বের কাছে তুলে ধরা। এছাড়া অংশ নিচ্ছেন ভারতীয় সাংবাদিক প্রেয়াগ আকবর, প্রিয়াঙ্কা দুবে, ফিনিশ সাংবাদিক মিন্না লিন্ডগ্রেন, ডিএসসি পুরস্কারপ্রাপ্ত লেখক এইচএম নাকভি, ব্রাজিলের কথাসাহিত্যিক ইয়ারা রড্রিগেজসহ অনেকে।’

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে সাদাফ বলেন, ‘ঢাকা লিট ফেস্ট ২০২০ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে উৎসর্গ করা হবে। আর এবছর জাতির জনককে নিয়ে থাকছে অসংখ্য সেশন।’

ঢাকা ট্রিবিউনের সম্পাদক জাফর সোবহান বলেন, ‘এটি এমন একটি উৎসব যেখানে বাংলাদেশকে আমরা বিশ্বের কাছে তুলে ধরতে পারি, বিশ্ব সাহিত্য ও চিন্তাকে বাংলার মানুষের কাছে তুলে ধরতে পারি। ঢাকার প্রাণকেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হওয়া এই আয়োজন ইতোমধ্যে মানুষের হৃদয় কেড়েছে। আশা করি এবারও সাহিত্যামোদীরা হতাশ হবেন না। ঢাকা ট্রিবিউন এই আয়োজনের সঙ্গে থাকতে পেরে ভীষণ গর্বিত।’

জুলফিকার রাসেল বলেন, ‘এটা যেহেতু একটা উৎসব, তাই এই উৎসবে শুধু সাহিত্যিক নন, বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ এখানে আসেন এবং তারা আলোচনা করেন। দেশের বাইরে থেকে যে বরেণ্য ব্যক্তিরা আসেন, তাদের সঙ্গে আমাদের দেশের যারা আছেন বিভিন্ন জেনারেশনের, তারা আলোচনা করার সুযোগ পান। অনুষ্ঠানে বাংলা যে সেশনগুলো আছে সেগুলো আমরা খুব ভালোভাবে অনুসরণ করি। যেহেতু আমি প্রতিনিধি, সেখানে দেখা যায় অনেক কিছু জানার এবং শেখার আছে, সেগুলো আমরা আমাদের পাঠকদের কাছে তুলে ধরি। এরকম একটি ফেস্টিভালের সঙ্গে  যুক্ত হতে পারায় আমরা গর্বিত এবং আনন্দিত। আমরা বরাবরই এই উৎসবের সঙ্গে থাকার প্রত্যয় ব্যক্ত করি।’

সিটি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাসরুর আরেফিন বলেন, ‘বাংলা ভাষার একজন লেখক হয়ে আমি ব্যক্তিগতভাবে এবং সিটি ব্যাংকের প্রতিনিধি হিসেবে এই আয়োজনের সঙ্গে থাকতে পেরে আমরা গর্বিত। সোশ্যাল মিডিয়ার যুগে মানুষকে বইয়ের কাছে ফিরিয়ে আনা হচ্ছে এই উৎসবের মাধ্যমে।’ সিটি ব্যাংক সবসময় ঢাকা লিট ফেস্টের সঙ্গে কাজ করতে ইচ্ছুক বলে জানান তিনি। তিনি সর্বাঙ্গীণ সাফল্য কামনা করেন।

প্রথমদিন এই উৎসবে দেওয়া হবে বাংলাদেশের জনপ্রিয় সাহিত্য সম্মাননা জেমকন সাহিত্য পুরস্কার।

এই উৎসবের দ্বিতীয় দিনে প্রদর্শিত হবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওপর নির্মিত ডকুফিল্ম ‘হাসিনা: অ্যা ডটার্স টেল’। প্রদর্শন শেষে চলচ্চিত্র নির্মাতা পিপলু খান বলবেন এর নির্মাণ অভিজ্ঞতা নিয়ে। এছাড়া ভারতীয় চলচ্চিত্র নির্মাতা কৌশিক মুখার্জি আসছেন তার চলচ্চিত্র নিয়ে আলাপ করতে।

উৎসবটি প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে রাত ৭টা পর্যন্ত সবার জন্য মুখর থাকবে বিভিন্ন আয়োজনে।

দর্শনার্থী ও সাহিত্যপ্রেমী থেকে শুরু করে সব অঙ্গনের মানুষের জন্য উন্মুক্ত এ আয়োজনে অংশ নিতে শুধু একটি রেজিস্ট্রেশন প্রয়োজন হবে, যেটি নিশ্চিত করবে অংশগ্রহণকারীর পরিচয়। রেজিস্ট্রেশনের মাধ্যমে পাওয়া ই-টিকিটটি ব্যবহৃত হবে আয়োজনে অংশগ্রহণকারীর প্রবেশপত্র হিসেবে। তবে সবার সুবিধার্থে ই-টিকিটটি প্রিন্ট বা ইলেকট্রনিক ডিভাইসে বহন গ্রহণযোগ্য হবে। রেজিস্ট্রেশন করতে ক্লিক করুন এই ঠিকানায়: https://www.dhakalitfest.com/register

বিশেষ এ আয়োজনে অংশ নিতে যাওয়া বিশেষ বক্তাদের সম্পর্কে জানতে ক্লিক করুন নিচে উল্লেখ করা ঠিকানায়, যেখানে তুলে ধরা হয়েছে আয়োজনে অংশগ্রহণকারীদের পরিচয় থেকে শুরু করে সংক্ষিপ্ত আদ্যোপান্ত। https://www.dhakalitfest.com/2019

ঢাকা লিট ফেস্ট আয়োজিত হচ্ছে সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের বিশেষ সহযোগিতায়। এটির টাইটেল স্পন্সর ইংরেজি দৈনিক ঢাকা ট্রিবিউন ও অনলাইন নিউজপেপার, প্লাটিনাম স্পন্সর সিটি ব্যাংক। অনুষ্ঠানের সার্বিক আয়োজনে রয়েছে যাত্রিক। সহ-আয়োজক হিসেবে রয়েছে বাংলা একাডেমি। এছাড়া গোল্ড স্পন্সর হিসেবে রয়েছে ইন্ডিপেন্ডেন্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ। সিলভার স্পন্সর হিসেবে রয়েছে ব্র্যাক ব্যাংক, সাউথ ইস্ট ব্যাংক, ঢাকা ব্যাংক। এছাড়া আরও পার্টনার হিসেবে রয়েছে মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক, নগদ, স্কলাস্টিকা, বিকাশ, ইউনিভার্সিটি অব এশিয়া প্যাসিফিক, ব্রিটিশ কাউন্সিল, ইন্টার কন্টিনেন্টাল, ঢাকাস্থ নরওয়েজিয়ান দূতাবাস, গোথে ইনস্টিটিউট, ইএমকে সেন্টার।

শেয়ার করুন

এই বিভাগের অন্যান্য খবর
© All rights reserved © Sandhani TV
Theme Design by Hasan Chowdhury